শনিবার, ১০ ডিসেম্বর ২০২২, ০৮:৪৫ পূর্বাহ্ন

স্ন্যাপড্রাগনকে ছাড়িয়ে শীর্ষে ডাইমেনসিটি ৯০০০+

প্রতিনিধির / ১৯ বার
আপডেট : বুধবার, ৫ অক্টোবর, ২০২২
স্ন্যাপড্রাগনকে ছাড়িয়ে শীর্ষে ডাইমেনসিটি ৯০০০+
স্ন্যাপড্রাগনকে ছাড়িয়ে শীর্ষে ডাইমেনসিটি ৯০০০+

সম্প্রতি চীনের বাজারে সবচেয়ে শক্তিশালী অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোনের তালিকা প্রকাশ করেছে সফটওয়্যার বেঞ্চমার্কিং টুল আন্টুটু। র্যাংকিংয়ের দিক থেকে স্ন্যাপড্রাগনের সব প্রসেসরকে ছাড়িয়ে গেছে মিডিয়াটেকের ডাইমেনসিটি ৯০০০+। খবর গিজচায়না।

তালিকার তথ্যানুযায়ী, ১১ লাখ ২৩ হাজার ৩৬ পয়েন্ট নিয়ে স্ন্যাপড্রাগন ৮প্লাস জেন ১ ফ্ল্যাগশিপ প্রসেসরকে পেছনে ফেলেছে আসুসের রগ৬ স্মার্টফোনে থাকা মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ৯০০০+। প্রকাশিত প্রতিবেদনের তথ্যানুযায়ী, রগ৬ স্মার্টফোনটি শুধু ভালো স্কোরই অর্জন করেনি। পাশাপাশি ডিভাইস থেকে তাপ নিরোধনেও ভালো সক্ষমতা দেখিয়েছে। ডিভাইসটিতে স্মার্টফোনের বাজারে প্রথমবারের মতো সানরুফসহ তাপ নিরোধক ডিজাইন দেয়া হয়েছে। প্রতিষ্ঠানটির দাবি রগ৬-এর ডিজাইস ও ডাইমেনসিটি ৯০০০ প্লাসের সমন্বয় ব্যবহারকারীদের আকৃষ্ট করতে পেরেছে।

পারফরম্যান্সের দিক থেকে শীর্ষ দশের বাকিগুলো স্ন্যাপড্রাগন ৮প্লাস ফ্ল্যাগশিপ প্রসেসরের দখলে। ১১ লাখ ১১ হাজার ২০০ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার দ্বিতীয় স্থানে ওয়ান প্লাস এইস প্রো ও ১০ লাখ ৯১ হাজার ৫৮ স্কোর নিয়ে তৃতীয় স্থানে আইকিউওও ১০ প্রো। বিল্ট ইন ফাইভজি মডেমসহ মিডিয়াটেকের ডাইমেনসিটি ৯০০০ একটি প্রিমিয়াম প্রসেসর। এতে একটি দ্রুতগতির করটেক্স এক্স২ কোর, তিনটি অতিরিক্স এ৭১০ কোর, চারটি করটেক্স এ৫১০ রয়েছে। তাইওয়ান সেমিকন্ডাক্টর ম্যানুফ্যাকচারিং কোম্পানিতে ৪ ন্যানোমিটার প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে প্রসেসরটি তৈরি করা হয়েছে। সামগ্রিকভাবে প্রসেসরটি ৬ মেগাবাইট সিস্টেশ ক্যাশ ও ৮ মেগাবাইট লেভেল থ্রি ক্যাশ ব্যবহার করে।

প্রসেসরে এলপিডিডিআর৫এক্স র্যাম ব্যবহার করা যাবে। পাশাপাশি ইন্টিগ্রেটেড গ্রাফিকস প্রসেসিং ইউনিট হিসেবে এতে এআরএম মালি-জি৭১০ এমসি১০ দেয়া হয়েছে। ৪ ন্যানোমিটার প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে টিএসএমসি যেসব চিপ তৈরি করেছে তার মধ্যে ডাইমেনসিটি ৯০০০ অন্যতম।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ