রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:৫৫ অপরাহ্ন

চরভদ্রাসনে বড় ভাই-ভাবিকে কুপিয়ে জখম করলো ছোট দুই ভাই

প্রতিনিধির / ১৫ বার
আপডেট : শনিবার, ৮ অক্টোবর, ২০২২
চরভদ্রাসনে বড় ভাই-ভাবিকে কুপিয়ে জখম করলো ছোট দুই ভাই
চরভদ্রাসনে বড় ভাই-ভাবিকে কুপিয়ে জখম করলো ছোট দুই ভাই

ফরিদপুরের চরভদ্রাসনে ছোট দুই ভাই মিলে কুপিয়ে গুরুতর জখম করেছে বড় ভাই ও ভাবিকে। উপজেলার সদর ইউনিয়নের বিএসডাঙ্গী গ্রামে
জমি-জমার বিরোধ নিয়ে ছোট দুই ভাই কোদাল দিয়ে নৃশংসভাবে কুপিয়েছে তাদের বড় ও ভাবিকে।

আহতরা হলেন-মো. সরোয়ার হোসেন তালুকদার (৫৬) ও তার স্ত্রী শাহানাজ পারভীন (৪০)।

শুক্রবার (৭ অক্টোবর) রাতে চরভদ্রাসন থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) মিন্টু মন্ডল এর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়। তবে এ ঘটনায় রাত পর্যন্ত থানায় কোন লিখত অভিযোগ দায়ের করা হয়নি।

অভিযোগ দায়ের করা হলে তদন্ত পূর্বক আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এর আগে শুক্রবার (৭ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে উপজেলার বিএসডাঙ্গী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

সারোয়ার তালুকদারের স্ত্রী শাহানাজ পারভীন জানান, আমাদের ঘরের সামনে রাজু তালুকদার (সম্পর্কে দেবর) মাটিকাটা কোদাল দিয়ে গর্ত খোড়া শুরু করে। এসময় আমার স্বামী সরোয়ার হোসেন ঘরের সামনে তাকে গর্ত খুড়তে নিষেধ করেন। এ নিয়ে তখন বাকবিতণ্ডা শুরু হয়। এক পর্যায়ে সরোয়ার তালুকদারকে কোদাল দিয়ে কুপিয়ে জখম করেন রাজু তালুকদার।

এসময় আমি ঠেকাতে গেলে আমার দুই দেবর সাইদ তালুকদার (৫০) ও রাজু তালুকদার (৩৫) আমাকেও কুপিয়ে আহত করে। আশপাশের লোকজন এসে আমাদের উদ্ধার করে চরভদ্রাসন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সরোয়ার তালুকদারের মাথায় গুরুতর জখমের কারণে প্রাথমিকভাবে চিকিৎসা ও রক্তক্ষরণ বন্ধ করে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ফরিদপুরের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠান।

এ বিষয়ে বক্তব্য জানতে রাজু তালুকদারের মোবাইলে যোগাযোগের চেষ্টা করে মোবাইল নাম্বার বন্ধ থাকায় বক্তব্য জানা যায়নি।

মোবাইল ফোনে রাজু তালুকদারের আরেক ভাই সাইদ তালুকদার তিনি কুপানোর সঙ্গে জড়িত নয় বলে দাবি করে জানান, বড় ভাই সরোয়ার তালুকদারের সঙ্গে তাদের জমিজমা নিয়ে বিরোধ চলছিলো। আমি কুপিয়ে জখম করার সঙ্গে জড়িত নই। চিৎকার চেচামেচি শুনে এগিয়ে দেখি বড় ভাই সরোয়ারকে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে চরভদ্রাসন উপজেলা সদর ইউনিয়ন পরিষদের(ইউপি)চেয়ারম্যান মো. আজাদ খান এর সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, জমিজমা নিয়ে তাদেন ভাইদের মধ্যে দীর্ঘদিন যাবৎ বিরোধ চলে আসছিলো। এ নিয়ে কয়েক ধাপে সালিশ বৈঠকও অনুষ্ঠিত হয়েছে কিন্তু কোন মিমাংসা করা যায়নি। এরপর ভাইদের মধ্যে কুপিয়ে জখমের ঘটনা ঘটে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ