শিরোনাম:
বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ০৫:২২ অপরাহ্ন

যুক্তরাষ্ট্র মধ্যবর্তী নির্বাচনে এগিয়ে আছে ডোনাল্ড ট্রাম্প

প্রতিনিধির / ২৪ বার
আপডেট : বুধবার, ৯ নভেম্বর, ২০২২
যুক্তরাষ্ট্র মধ্যবর্তী নির্বাচনে এগিয়ে আছে ডোনাল্ড ট্রাম্প
যুক্তরাষ্ট্র মধ্যবর্তী নির্বাচনে এগিয়ে আছে ডোনাল্ড ট্রাম্প

যুক্তরাষ্ট্রের রাজনৈতিক প্রথা অনুযায়ী, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ২ বছর পর অনুষ্ঠিত হয় কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভস (প্রতিনিধি পরিষদ) ও উচ্চকক্ষ সিনেটের একাংশ আসনের নির্বাচন। সেই প্রথা অনুযায়ী মঙ্গলবার প্রতিনিধি পরিষদের ৪৩৫টি আসন ও সিনেটের ৩৫টি আসনে ভোট অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে হয়েছে মধ্যবর্তী নির্বাচন। প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের দুই বছরের মাথায় অনুষ্ঠিত হয় এই নির্বাচন। কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ বা প্রতিনিধি পরিষদের ৪৩৫টি আসনের প্রতিটিতে এবং সিনেটের এক-তৃতীয়াংশ বা ৩৫টি আসনে ভোট হয়েছে। ভোটাভুটি শেষে এখন চলছে গণনা।

প্রতিনিধি পরিষদ ও সিনেটের কয়েকটি আসনের ফলও চলে এসেছে। আর এতে দেখা যাচ্ছে, যুক্তরাষ্ট্রের কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদের নির্বাচনের ফলাফলে এখন পিছিয়ে আছে বর্তমান প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের ডেমোক্র্যাটিক পার্টি। অন্যদিকে এগিয়ে আছে সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের রিপাবলিকান পার্টি।

৪৩৫টি আসনের মধ্যে ১৭৮টি আসনের ফলাফল পাওয়া গেছে। এরমধ্যে বাইডেনের ডেমোক্র্যাটসরা পেয়েছে ৬৭টি আসন। আর ট্রাম্পের রিপাবলিকানরা পেয়েছে ১১৫টি আসন। প্রতিনিধি পরিষদে সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেতে হলে কমপক্ষে ২১৮টি আসনে জয় পেতে হবে।অন্যদিকে উচ্চকক্ষ সিনেটে সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেতে ১০০টি আসনের মধ্যে কমপক্ষে ৫০টি আসনে জয় পেতে হবে। ডেমোক্র্যাটসরা সিনেটের ৩৮টি আসন এবং রিপাবলিকানরা সমান ৩৯টি আসন পেয়েছে

যুক্তরাষ্ট্রের কংগ্রেসের উচ্চকক্ষ সিনেটের ১০০টির মধ্যে ৩৫টি এবং নিম্নকক্ষ হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভসের ৪৩৫টি সাধারণ আসনের সবকটিতেই ভোট হচ্ছে এবার। সেই সঙ্গে হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভসের ‘ভোটদানের ক্ষমতাহীন’ ৬টি আসনের মধ্যে ৫টি ও ৩৬টি রাজ্য ও ৩টি টেরিটরির গভর্নর নির্বাচন হবে।মধ্যবর্তী নির্বাচনের প্রভাব মার্কিনিদের দৈনন্দিন জীবনের ওপরও নেহাতই কম নয়। বিশ্লেষকরা বলছেন, কংগ্রেসের যেকোনো পরিবর্তন সরাসরি মার্কিনিদের দৈনন্দিন জীবনে কীভাবে প্রভাব ফেলতে পারে, তার বড় উদাহরণ হতে পারে গর্ভপাত।

গত জুনে যুক্তরাষ্ট্রের সুপ্রিম কোর্ট সাংবিধানিকভাবে সুরক্ষিত গর্ভপাতের অধিকার আইন বাতিল করেন। মধ্যবর্তী নির্বাচনে কংগ্রেসের নিয়ন্ত্রণ হাতে এলে এ ইস্যুতে নতুন আইনের প্রস্তাব করবে বলে জানিয়ে রেখেছে দুই দলই।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ