শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২৩, ০৭:৩১ অপরাহ্ন

নিখোঁজের চারদিন পর সেপটিক ট্যাংকে মিলল মা ও ছেলের মরদেহ

প্রতিনিধির / ২২ বার
আপডেট : শুক্রবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০২২
নিখোঁজের চারদিন পর সেপটিক ট্যাংকে মিলল মা ও ছেলের মরদেহ
নিখোঁজের চারদিন পর সেপটিক ট্যাংকে মিলল মা ও ছেলের মরদেহ

শেরপুরে নিখোঁজ হওয়ার চারদিন পর বাসার সেপটিক ট্যাংকে মা ও ছেলের মরদেহ পেয়েছে পুলিশ।বৃহস্পতিবার (৮ ডিসেম্বর) বিকেলে শহরের সিংপাড়া এলাকা থেকে তাদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন শেরপুর সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ হান্নান মিয়া।

জানা গেছে, উদ্ধার হওয়া মরদেহ দু’টি অটোরিকশার চালক মোরশেদের স্ত্রী রোমানা আক্তার রোকসানা (২৮) ও ছেলে জুনাইদ হাসান রাফির (১১)।এ হত্যায় জড়িত সন্দেহে রোমানার স্বামী মোরশেদ ও শাশুড়িসহ তিনজনকে আটক করে পুলিশ।

পুলিশ জানায়, রোমানা ও রাফি গত শনিবার (৩ ডিসেম্বর) সিংপাড়া এলাকা থেকে নিখোঁজ হয়েছিলেন। রোমানা পেশায় একজন সেবিকা। তার ছেলে রাফি শহরের সাত রঙ পাবলিক স্কুলের চতুর্থ শ্রেণির শিক্ষার্থী।পুলিশ আরও জানায়, গত বুধবার রাতে রোমানার বোন শেরপুর সদর থানায় রোমানা ও রাফির নিখোঁজ হওয়ার ব্যাপারে সাধারণ ডায়েরি করেন। এরপর তদন্ত শুরু করে পুলিশ। পরে বৃহস্পতিবার বিকেলে তাদের বাসার সেপটিক ট্যাংকে মা-ছেলের মরদেহ পায় পুলিশ।

শেরপুর সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ হান্নান মিয়া জানান, দু’জনের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে নিহত রোমার স্বামী ও শাশুড়িসহ তিনজনকে আটক করা হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ