শনিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৩, ০৩:৪৫ অপরাহ্ন

ইউএনও নাম ব্যবহার করে ৪৪ কেজি গরুর মাংস নিয়ে উধাও

প্রতিনিধির / ১০ বার
আপডেট : রবিবার, ২৫ ডিসেম্বর, ২০২২
ইউএনও নাম ব্যবহার করে ৪৪ কেজি গরুর মাংস নিয়ে উধাও
ইউএনও নাম ব্যবহার করে ৪৪ কেজি গরুর মাংস নিয়ে উধাও

রাজশাহীর পুঠিয়ায় পুলিশের পরিচয় দিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) নাম ব্যবহার করে কসাইখানা থেকে ৪৪ কেজি গরুর মাংস নিয়ে দুই প্রতারক উধাও হয়েছেন বলে জানা গেছে । যার মূল্য ২৯ হাজার ৫০০ টাকা।পুঠিয়ার বিড়ালদহ বাজারে শনিবার (২৪ ডিসেম্বর) এই ঘটনায় থানায় অভিযোগ করেছে ভুক্তভোগী।

ভুক্তভোগী বানেশ্বর ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হান্নান বলেন, অটোরিকশায় করে আমার কসাইখানায় এসে দুজন ব্যক্তি নিজেদের থানার পুলিশ সদস্য বলে পরিচয় দেন। তারা বলেন ইউএনও স্যার তার বাসভবনের অনুষ্ঠানের জন্য মাংস নিতে পাঠিয়েছেন তাদের। ৫০ কেজি গরুর মাংস লাগবে এবং সঙ্গে একজন কসাই যেতে হবে। সেখানে গিয়ে মাংসগুলো ছোট ছোট সাইজ করে দিতে হবে এবং কাজ শেষে বিল পরিশোধ করা হবে। পরে জবাইকৃত গরু থেকে ৪৪ কেজি, গরুর চারটি পা নিয়ে একজন কসাই তাদের সঙ্গে অটোতে যান।

এরপর ওই দুই ব্যক্তি পুঠিয়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে আসলে একজন জানান, আমি মাংস নিয়ে স্যারের বাসভবনে যাব এবং অপরজন টাকা থানা থেকে দেওয়া হবে বলে ওই কসাইকে জানান। পরে টাকা আনতে ওই কসাইকে থানায় পাঠিয়ে দিয়ে তারা পালিয়ে যান।পরে তাদের বিভিন্নস্থানে খোঁজাখুঁজির পর না পেয়ে রাত ৮টার দিকে হান্নান থানায় একটি অভিযোগ দেন।

পুঠিয়া থানার ওসি সোহরাওয়াদী হোসেন বলেন, ভুক্তভোগী ঘটনার দিন রাতে থানায় অভিযোগ দিয়েছেন। বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নুরুল হাই মোহাম্মদ আনাছ বলেন, প্রতারক চক্রের সদস্যরা বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করে প্রতারণা করছে। এ বিষয়ে তিনি সবাইকে সচেতন হওয়ার পরামর্শ দেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ