শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ১২:১৪ পূর্বাহ্ন

আরাভকে দেশে ফেরাতে ইন্টারপোলের সহায়তা চাইবে পুলিশ

প্রতিনিধির / ৬৪ বার
আপডেট : বৃহস্পতিবার, ১৬ মার্চ, ২০২৩
আরাভকে দেশে ফেরাতে ইন্টারপোলের সহায়তা চাইবে পুলিশ
আরাভকে দেশে ফেরাতে ইন্টারপোলের সহায়তা চাইবে পুলিশ

পুলিশের বিশেষ শাখার (এসবি) সদস্য খুনের মামলার আসামি রবিউল ইসলাম ওরফে আরাভ খানকে দেশে ফেরাতে ইন্টারপোলের সহায়তা চাইবে পুলিশ।বৃহস্পতিবার (১৬ মার্চ) দুপুরে নিজ কার্যালয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা জানান ডিবিপ্রধান মোহাম্মদ হারুন-অর-রশীদ।

তিনি বলেন, ঊর্ধ্বতনদের সঙ্গে আলাপ করে ইন্টারপোলের সহায়তায় আরাভকে দেশে ফিরিয়ে এনে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।ডিবিপ্রধান বলেন, আমাদের পুলিশের একজন মেধাবী কর্মকর্তা ছিলেন পরিদর্শক মামুন। তাকে শুধু হত্যাই করেনি। তার লাশটি যেন না পাওয়া যায় তাই কালীগঞ্জের জঙ্গলে ফেলে দিয়েছিল। এ ঘটনার পর মামলা হয়। এরপর ডিবি তদন্ত করেছে।

আসামি আরাভ খান ওরফে রবিউল ইসলাম পালিয়ে গেলেও নকল একজন আসামি জেলখানায় দেয় সে। পরে ডিবির তদন্তে নকল আসামির ঘটনা সামনে আসে। এরমধ্যে মূল আসামি দুবাইয়ে স্বর্ণের দোকানের মালিক রবিউল ইসলাম ওরফে আরাভ খান ভারতে পালিয়ে যায়। সেখানে তিনি ভারতীয় পাসপোর্টে দুবাই যান।

আরাভ খান ওরফে রবিউল ইসলাম একজন খুনি, সে একজন মেধাবী পুলিশ কর্মকর্তাকে খুন করেছে। মিডিয়াতে অনেকের বলার পরেও সাকিবসহ অন্যান্য স্টার খুনের মামলার আসামির ডাকে দুবাইয়ে গেছেন। তার স্বর্ণের দোকান উদ্বোধনে যোগ দিয়েছেন।তার নামে এখন পর্যন্ত কতগুলো মামলার অভিযোগ রয়েছে জানতে চাইলে হারুন-অর-রশীদ বলেন, আসামির নামে এখন পর্যন্ত ১২টি ওয়ারেন্ট রয়েছে। মামলা রয়েছে, চার্জশিট রয়েছে তার নামে।

আরাভ খানই রবিউল ডিবি কখন নিশ্চিত হয়েছে, এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, যখন কোনো মামলার চার্জশিট দেওয়া হয় তখন সব আসামিরা কে কোথায় আছে তা খোঁজ-খবর নেওয়া হয়। আরাভ খানের বিভিন্ন ছবি প্রকাশ হয় এবং সাকিব আল হাসান টেলিভিশন ও ফেসবুকে ওই স্বর্ণের দোকান উদ্বোধনের বিজ্ঞাপন দিচ্ছিলেন। সবকিছু মিলেই আমরা তথ্য পাই আরাভ খানই পুলিশ খুনের মামলার আসামি রবিউল ইসলাম।

ডিবিপ্রধান বলেন, খুনের পর বিভিন্ন সময় বিভিন্ন নাম ধারণ করেন রবিউল ইসলাম। ভারতীয় পাসপোর্ট নিয়ে সে এখন দুবাইতে অবস্থান করছে।ক্রিকেটার সাকিব অথবা অন্য যারা দুবাইতে গেছেন ডিবি কারও সঙ্গে কথা বলেছেন কিনা জানতে চাইলে হারুন-অর-রশীদ বলেন, সাকিবসহ অন্যদেরও জানানো হয়েছে। জানানোর পরেও তারা কেন পুলিশ খুনের মামলার আসামির ডাকে দুবাই গেলেন এটা আমি জানি না।সাকিব-হিরো আলম দেশে ফিরলে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, তদন্তের স্বার্থে আমরা যদি প্রয়োজন মনে করি তবে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ