শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১০:৫৮ অপরাহ্ন

আইপিএলে ‘ছায়া নিষেধাজ্ঞার’ কবলে পড়তে পারে বাংলাদেশ!

প্রতিনিধির / ৬৮ বার
আপডেট : রবিবার, ২৬ মার্চ, ২০২৩
আইপিএলে ‘ছায়া নিষেধাজ্ঞার’ কবলে পড়তে পারে বাংলাদেশ!
আইপিএলে ‘ছায়া নিষেধাজ্ঞার’ কবলে পড়তে পারে বাংলাদেশ!

বিশ্বে জনপ্রিয় ক্রিকেট ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্টগুলোর একটি হলো ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (আইপিএল)। আর এ টুর্নামেন্টে বেশ কয়েক আসর ধরেই খেলছেন বিশ্বসেরা টাইগার অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। এছাড়া গত কয়েক আসর ধরে খেলছেন টাইগার বাঁহাতি পেসার মুস্তাফিজুর রহমানও। এবার তাদের সঙ্গে প্রথমবারের মতো ডাক পেয়েছে ব্যাটার লিটন দাস। তবে তাদের আইপিএল খেলতে যাওয়া নিয়ে শুরু হয়েছে টাল-বাহানা। কারণ বোর্ড হতে এনওসি পাচ্ছে না খেলোয়াড়রা। ন্যাশনাল ডিউটি পুরো করেই তাদের খেলতে জেতে হবে আইপিএলে।

এদিকে শুরু থেকে বাংলাদেশি খেলোয়াড়দের না পাওয়ায় বেশ বিরক্ত আইপিএলের ফ্র্যাঞ্চাইজিরা। যাতে করে ভবিষ্যতে আইপিএলে দল পেতে বেশ বেগ পেতে হতে পারে বাংলাদেশিদের। শুধু তাই নয়, বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের পড়তে হতে পারে টুর্নামেন্ট থেকে ‘ছায়া নিষেধাজ্ঞার’ কবলেও। এমনটি জানাচ্ছে ভারতের গণমাধ্যমগুলো।বাংলাদেশি ক্রিকেটারদের সঠিক সময়ে আইপিএলে খেলতে না যাওয়ার বিষয়টি এবারই প্রথম নয়। প্রায় প্রতি মৌসুমেই তাদের এনওসি দেওয়া নিয়ে দেখা যায় নাটকীয়তা, ব্যতিক্রম হয়নি এবারও। এতে নাকি অনেকটা ত্যক্তবিরক্ত হয়ে উঠেছে ফ্র্যাঞ্চাইজিরা। এই দুই দেশের ক্রিকেটারদের কিনতে গেলে অনেক ভাবতে হচ্ছে, অনেক বেকায়দায় পড়তে হচ্ছে দল সাজাতে। বিসিসিআইয়ের কর্তারাও নাকি এতে নাখোশ।

একটি ফ্র্যাঞ্চাইজির কর্মকর্তা এ বিষয়ে বলেন, ‘আমরা এটা নিয়ে অভিযোগ জানাতে পারি না, কারণ অন্য বোর্ডের সঙ্গে আলোচনাটা বিসিসিআই করে। তবে হ্যাঁ, এসব দেশ থেকে খেলোয়াড় কেনার ক্ষেত্রে ফ্র্যাঞ্চাইজি দ্বিধায় থাকে। দেখুন, গত বছর তাসকিন আহমেদকে কিনতে চেয়েছিল লখনৌ সুপার জায়ান্টস, কিন্তু সে এনওসি পেল না। এবারও তিন ক্রিকেটারকে আইপিএলের শুরু থেকে খেলতে দেওয়া হচ্ছে না। যদি বিসিবি চায় না তাদের খেলোয়াড়রা আইপিএলে খেলুক, তাহলে নিলামে নাম নিবন্ধন না করলেই হয়। তবে এটা নিশ্চিত, ভবিষ্যতে বাংলাদেশি খেলোয়াড়দের নিয়ে ধারণা বদলে যাচ্ছে।’এদিকে বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা এখন ব্যস্ত ঘরের মাঠে আয়ারল্যান্ডকে নিয়ে। ইতোমধ্যে সফরকারীদের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলে ফেলেছে টাইগাররা। আগামীকাল থেকে শুরু হবে তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজ। এরপর আগামী ৪ এপ্রিল শুরু হবে এক ম্যাচ টেস্ট সিরিজ। তবে আইপিএলে দল পাওয়া তিন ক্রিকেটার টেস্ট না খেলেই টুর্নামেন্টটিতে যোগ দিতে চেয়েছিলেন। তাতে আপত্তি জানিয়েছে বিসিবি। ক্রিকেট বোর্ড সভাপতি, খেলোয়াড়দের টেস্ট না খেলে আইপিএলে যাওয়ার জন্য ছাড়পত্র দিতে রাজি নন।

কয়েক দিন আগে সাকিব-লিটনের এনওসি নিয়ে বিসিবি প্রধান পাপন বলেছিলেন, ‘না থাকার (বাংলাদেশের খেলার সময়) আমি কোনো অপশনই দেখি না। আমার কথা হচ্ছে, এটা যদি এমন হতো তাদেরকে বলেছি আমরা ভেবে-চিন্তে দেখতেও পারি। এই ধরনের কোনো অপশন দিয়েছি খেলোয়াড়দের বা আইপিএলকে তাহলে একটা সন্দেহ থাকত, আমরা তো ক্লিয়ারকাট বলেই দিয়েছি। কাজেই আমরা এখন পর্যন্ত সেই সিদ্ধান্তেই আছি, সিদ্ধান্ত পরিবর্তন হওয়ার কোনো সম্ভাবনা আমি দেখি না।’


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ