বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ০৫:৪৮ অপরাহ্ন

পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়া পৌর নির্বাচন হতে বাধা নেই

প্রতিনিধির / ১৯০ বার
আপডেট : রবিবার, ১৮ জুন, ২০২৩
পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়া পৌর নির্বাচন হতে বাধা নেই
পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়া পৌর নির্বাচন হতে বাধা নেই

পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়া পৌরসভা নির্বাচন হতে বাধা নেই। নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী এ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচনের ভোটার তালিকা সংশোধনের নির্দেশ সংক্রান্ত হাইকোর্টের আদেশ আট সপ্তাহের জন্য স্থগিত করেছেন চেম্বার আদালত। এক মেয়র প্রার্থীর আবেদনের প্রেক্ষিতে আপিল বিভাগের চেম্বার আদালতের বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম আজ রোববার (১৮ জুন) এ আদেশ দেন।

দেশের সর্বোচ্চ আদালতের এই আদেশের ফলে যথাসময়ে ভাণ্ডারিয়া পৌরসভা নির্বাচন হবে বলে জানিয়েছেন সাবেক অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল অ্যাডভোকেট এমকে রহমান। তিনি বলেন, নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর ভোটার তালিকা চ্যালেঞ্জ করে মামলা করার সুযোগ আইনে নেই। কিন্তু রিটকারী আইনের ব্যত্যয় ঘটিয়ে হাইকোর্টে মামলা করেন। ওই মামলায় ভোটার তালিকা সংশোধনের আদেশ দিয়ে নির্বাচনের তফসিল স্থগিত করে হাইকোর্ট। এই আদেশের বিরুদ্ধে চেম্বার আদালতে আবেদন করি। আদালত হাইকোর্টের আদেশ আট সপ্তাহের জন্য স্থগিত করে দেয়। ফলে যথাসময়ে ভাণ্ডারিয়া পৌর নির্বাচন হতে আইনগত কোন বাধা নাই। গত ৩১ মে ভাণ্ডারিয়া পৌরসভা নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

সেই তফসিল চ্যালেঞ্জ করে একের পর এক রিট মামলা করা হয় হাইকোর্টে। এর মধ্যে তিনটি মামলায় নির্বাচন অনুষ্ঠানের পর কোন স্থগিতাদেশ দেয়নি। তবে আরেকটি রিট মামলায় ভোটার তালিকা ২৮ দিনের মধ্যে সংশোধনের আদেশ দিয়ে নির্বাচনের তফসিল স্থগিত করে দেয় বিচারপতি ফারাহ মাহবুব ও বিচারপতি মাহবুব উল ইসলামের দ্বৈত হাইকোর্ট বেঞ্চ। আব্দুল হালিম হাওলাদারের করা রিট আবেদনের প্রেক্ষিতে গত ১৫ জুন এই আদেশ দেয় হাইকোর্ট। হাইকোর্টের এই আদেশ স্থগিত চেয়ে চেম্বার আদালতে আবেদন করেন পৌর নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী মাহিবুল হোসেন।

তার পক্ষে শুনানিতে অ্যাডভোকেট এম কে রহমান বলেন, হালিম হাওলাদারের ভাই মাসুম হাওলাদার ভোটার তালিকা সংশোধনের নির্দেশনা চেয়ে রিট মামলা করেছিলেন। কিন্তু হাইকোর্টের একটি বেঞ্চ সেই মামলায় নির্বাচন অনুষ্ঠানে কোন ধরনের স্থগিতাদেশ দেয়নি। তবে হালিম হাওলাদের মামলায় হাইকোর্টের অপর একটি বেঞ্চ নির্বাচন অনুষ্ঠানের উপর স্থগিতাদেশ দিয়েছে। কিন্তু ভোটার তালিকা আইন-২০০৯ এর ১৪ ধারা ও ভোটার তালিকা বিধিমালা-২০১২ এর ২৬ বিধি অনুযায়ী নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর ভোটার তালিকা সংশোধন বা নির্বাচন চ্যালেঞ্জ করে মামলা করার কোন সুযোগ নাই। কিন্তু এ ধরনের মামলা করে নির্বাচনকে বাধাগ্রস্ত করা হয়েছে। তাই হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত করার প্রার্থনা করছি। শুনানি নিয়ে আপিল বিভাগের চেম্বার বিচারপতি হাইকোর্টের আদেশ আট সপ্তাহের জন্য স্থগিত করে দেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ